জীবনের লক্ষ্য অর্জনের জন্য চাই মেধা এবং পরিশ্রমের সমন্বয়| তবে শুধু মেধা থাকলেই এবং পর্যাপ্ত পরিশ্রম করলেই যে জীবনের লক্ষ্য অর্জন করা যাবে এবং সাফল্য নিশ্চিত হবে তা কিন্তু নয়| আমরা সবাই যেমন জানি ‘পরিশ্রম সৌভাগ্যের চাবিকাঠি’, তেমনি পন্ডশ্রম বলেও একটা কথা কিন্তু আছে| জীবনের লক্ষ্য অর্জনের জন্য তাই কৌশলী হওয়াটাও প্রয়োজন| জীবনের লক্ষ্য অর্জনের  জন্য অনুসরণ করুন নিচের ৮টি কার্যকরী কৌশল:

 

. নিজের পছন্দ অনুযায়ী কাজ বেছে নিন

নিজের পছন্দকে প্রাধান্য দিন, সেটি কাজের ক্ষেত্রেই হোক বা অন্য কোন ক্ষেত্রে| এমন কোনো কাজ বেছে নিন, যা আপনাকে কাজটি আনন্দের সাথে করার জন্য অনুপ্রাণিত করবে| অন্যকে অনুকরণ না করে নিজের প্যাশন অনুযায়ী কাজ বেছে নিন| এটি আপনার জীবনে সাফল্য বয়ে আনবে|

 

. অর্জনযোগ্য লক্ষ্য নির্ধারণ করুন

ইংরেজিতে একটি কথা আছে, Don’t bite more than you can chew. তাই, লক্ষ্য নির্ধারণে সতর্ক হোন| নিশ্চিত হয়ে নিন, আপনার নির্ধারিত লক্ষ্য আসলেই বাস্তবসম্মত তো, অর্জন করা সম্ভব তো? অর্জন করা অসম্ভব এমন লক্ষ্যের পিছে ছুটে জীবন শেষ করে ফেলার কোন মানে হয় না|

 

. নিজেকে প্রতিশ্রুতি দিন

লক্ষ্য অর্জনের জন্য নিজের কাছে নিজেই প্রতিজ্ঞা করুন| নিজের কর্মকান্ডের জন্য নিজের কাছে দায়বদ্ধ থাকুন| অবহেলা করে সময় কাটানো থেকে বা লক্ষ্য থেকে বিচ্যুতি ঘটায় এমন কাজকর্ম থেকে নিজেকে বিরত রাখুন| যে কোন কাজ করবার আগে নিজেকে প্রশ্ন করুন, এটি কি আপনাকে আপনার লক্ষ্যে পৌঁছুতে সাহায্য করবে?

 

. নেতিবাচকতা ঝেড়ে ফেলুন

নেতিবাচক মনোভাব নিয়ে জীবনে কোনো কিছুই অর্জন করা সম্ভব নয়| তাই, নেতিবাচক মনোভাব পরিত্যাগ করুন| নেতিবাচক মনোভাব পরিত্যাগ করতে ইতিবাচক মানুষদের সাথে মিশুন| যারা আপনাকে নিয়ে বিদ্রুপ করে, আপনার উপর আস্থা রাখেন না, তাদের সঙ্গ পরিত্যাগ করুন| প্রচুর বই পড়ুন| সফল মানুষদের জীবনী পড়ুন|

 

. হাল ছেড়ে দিবেন না          

এই পৃথিবীতে কোনো কিছুই সহজে পাওয়া যায় না| আর যা কিছু সহজে পাওয়া যায়, তার দাম থাকে না| সহজ লক্ষ্য নিশ্চয়ই নির্ধারণ করেন নি, তাহলে লক্ষ্য অর্জন কঠিন তো হবেই| তাই বলে হাল ছেড়ে দিলে চলবেনা, বন্ধু! লড়েই জিততে হবে| “বিনা যুদ্ধে নাহি দেব সুচাগ্র মেদিনী” – মনে থাকবে তো কথাটা?

 

. অগ্রগতির হিসেব রাখুন

লক্ষ্য অর্জনের পথে কতটা এগোলেন, তার খেয়াল রাখছেন তো? এটাও কিন্তু গুরুত্বপূর্ণ| সঠিক ভাবে পরিকল্পনা করুন| আপনার লক্ষ্যকে কয়েকটি ভাগে ভাগ করে নিন| নিজের লক্ষ্য অর্জনের সম্ভাব্য গতিপথ নিজেই নির্ধারণ করে ফেলুন| একটু একটু করে সেই গতিপথ ধরে এগোতে থাকুন| ছোট ছোট করে হলেও অর্জন করুন| অর্জন গুলো কোথাও লিখে রাখুন| দেখবেন, উৎসাহ বেড়ে যাচ্ছে|

 

 

. ব্যর্থতাকে আলিঙ্গন করুন

বৈচিত্ৰই জীবনের বৈশিষ্ট| সবকিছু তো আর পরিকল্পনামাফিক হবে না| লক্ষ্য অর্জনের পথে ব্যর্থতা আসবেই, আসবে অনাকাঙ্খিত বাধা-বিপত্তিরাও| তাই বলে ভেঙে পড়লে বা হতাশাগ্রস্ত হয়ে পড়লে চলবে না কিন্তু| ব্যর্থতাকে হাসিমুখে আলিঙ্গন করতে শিখুন| আর শিখুন, কিভাবে দ্বিগুন উৎসাহে আবারো লক্ষ্য অর্জনের অদম্য যাত্রা নতুন করে শুরু করতে হয়|

 

. উদযাপন করুন

নিজেকে অনুপ্রাণিত করতে চাইলে সেই ছোট ছোট অর্জন গুলোকে অল্প করে হলেও উদযাপন করতে পারেন| দেখবেন, লক্ষ্য অর্জনের দীর্ঘ যাত্রাপথ ক্রমশই ফুরিয়ে আসছে| আরো বেশি করে আত্মবিশ্বাস ফিরে পাচ্ছেন, আরো উৎসাহী হচ্ছেন| ধীরে ধীরে আরো অদম্য হয়ে উঠছেন| কার সাহস আছে আপনাকে এখন লক্ষ্য অর্জন করা থেকে আটকাবে!

 

লক্ষ্য অর্জন কোনো সহজ কাজ নয় | ছাত্রজীবনে আমাদের পড়াশুনা থেকে শুরু করে, চাকরি ও ব্যবসা ক্ষেত্রে সফলতা অর্জন, এমনকি নিজেকে পরিবর্তন করা সবকিছুই নির্ভর করে পরিশ্রম, দৃঢ় মনোবল এবং আপনি কতটা কৌশলী হতে পারেন তার উপর | সুতরাং, সাফল্য নামক সোনার হরিণ পাওয়ার জন্য শুধু অক্লান্ত পরিশ্রমই নয়, বরং এর সাথে যোগ করতে হবে সঠিক প্রচেষ্টা এবং উপরের কৌশলগুলোর সঠিক অনুশীলন|

 

সুত্র

https://www.sitepoint.com/tips-to-help-you-achieve-goals/

http://www.boxingscene.com/motivation/8587.php

http://www.jobsite.co.uk/worklife/10-tips-career-goals-7194/

https://www.realbuzz.com/articles-interests/health/article/10-ways-to-achieve-your-life-goals/